চাঁদপুরে এবার ৩ হাজার ৬ হেক্টর জমিতে সরিষার চাষ হয়েছে

মতলব উত্তরে সরিষা ফলনের পার্থক্য কমানো বিষয়ে মাঠ দিবস

চাঁদপুর: চাঁদপুরের মতলব উত্তরে ন্যাশনাল এগ্রিকালচার টেকনোলজি প্রোগ্রাম- ফেজ- প্রজেক্ট (এনএটিপি-২) এর আওতায় ক্লাস্টার আকারে সরিষার ফলন পার্থক্য কমানো প্রযুক্তিগত বিষয়ে মাঠ দিবস অনুষ্ঠিত হয়েছে।

বুধবার (২৫ জানুয়ারি) বিকালে উপজেলার ষাটনল লঞ্চঘাট এলাকায় মাঠ দিবস অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে বক্তব্য রাখেন উপপরিচালক চাঁদপুর ড. সাফায়েত আহমেদ সিদ্দিকী।

উপজেলা কৃষি অফিসার মোঃ সালাউদ্দিনের সভাপতিত্বে ও উপসহকারী উদ্ভিদ সংরক্ষণ কর্মকর্তা মোঃ মজিবুর রহমানের সঞ্চালনায় স্থানীয় ইউপি সদস্য জসিম উদ্দিন, মহিলা ইউপি সদস্য জেসমিন আক্তার, কৃষক জহিরুল আলম প্রমুখ। পবিত্র কোরআন থেকে তেলোয়াত করেন অন্ধ হাফেজ মোঃ জহিরুল ইসলাম।

সরিষার বারি সরিষা ১৪ ক্লাস্টার আকারে প্রযুক্তিগত ফলন পার্থক্য কমানো বিষয়ে কৃষকদের সচেতন করা হয়। এতে ওই এলাকার বহু কৃষক উপস্থিত ছিলেন।

প্রধান অতিথি ড. সাফায়েত আহমেদ সিদ্দিকী বলেন, আমাদেরকে সুস্থ থাকতে হলে খাদ্য অভ্যাস পরিবর্তন করতে হবে। সরিষার তেল খাওয়া অভ্যাস করতে হবে। আমরা বাজার থেকে তেল সংগ্রহ না করে বেশি করে সরিষা চাষ করব। কারণ সরিষার অধিক স্বাস্থ্যকর একটি উপদান। এ কারণেই চাঁদপুরে এবার সরিষার চাষ হয়েছে ৩ হাজার ৬ হেক্টর জমিতে।

তিনি আরও বলেন, সরিষার চাষে দুইটা সেচ দিতে হয়। না পারলে কমপক্ষে একটি সেচ দিবেন। তাহলে সরিষার ফলন খুবই ভালো হবে।

ফম/এমএমএ/আরাফাত/

আরাফাত আল-আমিন | ফোকাস মোহনা.কম