বিকল্প কর্মসংস্থানের জন্য চাঁদপুর সদরে নিবন্ধিত জেলেদের মাঝে উপকরণ বিতরণ

ছবি: ফোকাস মোহনা.কম

চাঁদপুর : চাঁদপুর জেলার পদ্মা-মেঘান উপকূলীয় ৪ উপজেলায় ৪৪ হাজারের অধিক নিবন্ধিত জেলা পরিবার ইলিশসহ অন্যান্য মাছ আহরণ করে জীবন জীবিকা নির্বাহ করে। জাটকা সংরক্ষণের জন্য মার্চ-এপ্রিল দুই মাস এবং অক্টোবর মাসে মা ইলিশের প্রজনন রক্ষায় মাছ আহরণে নিষেধাজ্ঞা দেয়া হয়। এসব জেলে পরিবার ওই সময়ে কর্ম না থাকায় খাদ্য সংকটসহ নানা সমস্যায় পড়েন। তাদেরকে বিকল্প কর্মসংস্থানের দিকে ফিরিয়ে নিতে সরকার ইতোমধ্যে বিভিন্ন উদ্যোগ গ্রহণ করেছেন।

শনিবার (৪ জুন) দুপুর চাঁদপুর সদর উপজেলা পরিষদ প্রাঙ্গনে বৃহত্তর কুমিল্লা জেলায় মৎস্য উন্নয়ন প্রকল্পের আওতায় বিকল্প কর্মসংস্থান গড়ে তুলতে ৬০ জন নিবন্ধিত জেলেকে দু’টি করে ১শ’ ২০টি ছাগী প্রদান করা হয়।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চাঁদপুর সদর উপজেলা পরিষদ চেয়ারম্যান মোঃ নুরুল ইসলাম দেওয়ান, বিশেষ অতিথি ছিলেন সদর উপজেলা পরিষদ ভাইস চেয়ারম্যান মো. আইয়ুব আলী বেপারী।

এছাড়াও অনুষ্ঠানে উপজেলা প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা ডাঃ মোহাম্মদ মকবুল হোসেন, সিনিয়র উপজেলা মৎস্য কর্মকর্তা মোঃ তানজিমুল ইসলাম, উপজেলা সহকারী মৎস্য কর্মকর্তা মো. মিজানুর রহমান, বাংলাদেশ আওয়ামী মৎস্যজীবী লীগ চাঁদপুর জেলার সহ সভাপতি মো. শাহাআলম মল্লিক, জাতীয় মৎস্য জীবী সমিতির কেন্দ্রীয় সাংগঠনিক সম্পাদক মো. তসলিম বেপারী ও সাংবাদিক মির্জা জাকির হোসেন প্রমূখ উপস্থিত ছিলেন।

ফম/এমএমএ/

সিনিয়র করেসপন্ডেন্ট | ফোকাস মোহনা.কম