বাল্যবিয়েকে লালকার্ড দেখালেন পল্লী মঙ্গল উবি’র ছাত্রীরা

চাঁদপুর: যৌন হয়রানি নির্মুলকরণে চাঁদপুর সদর উপজেলার হামানকর্দ্দি পল্লী মঙ্গল উচ্চ বিদ্যালয়ে রোববার (২৪ নভেম্বর) দুপুরে  “আমার কথা অভিযোগ বক্স স্থাপন” করা হয়। একই সাথে  শিক্ষার্থীদের সাথে মতবিনিময় এর আয়োজন করা হয়েছে।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি হিসেবে উপস্থিত ছিলেন চাঁদপুরের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার (সদর সার্কেল) মোঃ জাহেদ পারভেজ চৌধুরী।

বিদ্যালয়ের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক মাওলানা আবু নাসের এর সভাপতিত্বে এবং ব্র্যাক সামাজিক ক্ষমতায়ন কর্মসূচির সিনিয়র জেলা ব্যবস্থাপক কালাচাঁদ দাস অসিত এর পরিচালনায় আরো উপস্থিত ছিলেন জেলা যৌন হয়রানী নির্মূলকরন নেটওয়ার্কের আহবায়ক প্রকৌশলী মোঃ দেলোয়ার হেসেন ,ব্র্যাক মাইক্রোফ্যাইন্যান্স কর্মর্সূচির আঞ্চলিক ব্যবস্থাপক মোঃ মোনায়েম খান ও মোঃ জহিরুল ইসলাম,জেলা ব্র্যাক সমন্বয়কারী মোঃ জিয়াউর রহমান ,বিদ্যালয়ের সহকারী শিক্ষক মোঃ শওকত হোসেন ,হাসান আহম্মেদ,রোকসানা আক্তার সহ সকল শিক্ষক বৃন্দ।

স্টুডেন্ট ওয়াচ গ্রুপের সদস্য ও বিদ্যালয়ের নবম শ্রেনীর শিক্ষার্থী আয়েশা আক্তার তার বক্তব্যে বলেন ব্র্যাক সমাজিক ক্ষমতায়ন কর্মর্সূচির মেজনিন প্রকল্পের মাধ্যমে আমার শিক্ষার্থীরা মিলে যৌন হয়রানী প্রবন ম্যাপ( হ্যারেজ ম্যাপ) তৈরী করি ,উক্ত স্থানগুলোতে যাতে পুলিশ বখাটেদের ধরে আইনের আওতায় নিয়ে আসে তার জন্য জেলা পুলিশকে অনুরোধ করছি ।

প্রধান অতিথি তার বক্তব্যে শিক্ষার্থীদের বলেন বাল্য বিয়ে, সাইবার বুলিং ও যৌন হয়রানীর কোন ঘটনা যদি কাউকে বলতে না পারো তাহলে তোমরা তোমাদের অভিযোগ আমার কথা বক্সে ফেলবে। এই ব্যাপারে শিক্ষার্থীরা যাতে নিজেরা সচেতন হয় পরিবার ও শিক্ষকদের সাথে খোলামেলা ভাবে আলোচনা করবে, প্রয়োজনে পুলিশের হট লাইন নাম্বারে যোগায়োগ করবে চাঁদপুর জেলাপুলিশ সব সময় তোমাদের পাশে থাকবে।

পরে উপস্থিত শিক্ষার্থীরা বাল্য বিয়েকে লালকার্ড প্রদর্শন ও শপথ বাক্য পাঠ করেন। অনুষ্ঠানে অতিরিক্ত পুলিশ সুপারের নির্দেশে টহল পুলিশ হয়রানী প্রবন এলাকায় টহল প্রদান করেন এবং পরবর্তীতে এই টহল অব্যাহত থাকবে বলে শিক্ষার্থীদের আশ্বস্ত করেন।

ফম/এমএমএ/

বিজ্ঞপ্তি | ফোকাস মোহনা.কম