প্রধানমন্ত্রীর সার্বিক সহায়তায় নির্বাচনী এলাকার সকল উন্নয়ন সম্ভব হয়েছে

--- মেজর (অব). রফিকুল ইসলাম বীরউত্তম এমপি

হাজীগঞ্জ উপজেলায় বিভিন্ন শিক্ষা প্রতিষ্ঠানের নতুন একাডেমিক ভবন উদ্বোধন
চাঁদপুর :  চাঁদপুর-৫ (হাজীগঞ্জ-শাহারাস্তি) আসনের সংসদ সদস্য মেজর (অব.) রফিকুল ইসলাম বীরউত্তম বলেছেন, আওয়ামী লীগ ক্ষমতায় আসার পূর্বে হাজীগঞ্জ ও শাহরাস্তি নির্বাচনী এলাকায় যোগাযোগ ব্যবস্থা খুবই খারাপ ছিল। বতর্মানে এই দুই উপজেলায় ৬শ’ কিলোমিটার সড়ক পাকা হয়েছে। যা প্রায় সাড়ে ৩শ’ মাইল দৈর্ঘ্য হবে। মাননীয় প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সহায়তায় এবং আপনাদের সহযোগিতায় আমরা এসব উন্নয়ন কাজ বাস্তবায়ন করতে সক্ষম হয়েছি। শুধুমাত্র সড়কই নয়, ডাকাতিয়া নদী ও সড়ক নির্মাণ করতে গিয়ে আমাদের দুই উপজেলায় প্রায় ৭শ’ ব্রিজ ও কালভার্ট নির্মাণ হয়েছে। প্রাথমিক, মাধ্যমিক, উচ্চ মাধ্যমিক ও মাদ্রাসার নতুন ৮শ’ একাডেমিক নতুন ভবন নির্মণা হয়েছে।

শনিবার (২৩ জুলাই) দুপুরে হাজীগঞ্জ উপজেলার রামচন্দ্রপুর উচ্চ বিদ্যালয়ের নতুন ভবন উদ্বোধন শেষে আয়োজিত আলোচনা সভায় প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, আজকে রাশিয়া ও ইউক্রেন যুুদ্ধের কারণে জ¦ালানি ও বিদ্যুৎ সংকট হচ্ছে। যার কারণে লোড শেডিং হচ্ছে ১-২ ঘন্টা করে। ইউরোপের দেশগুলোতে আরো বেশী লোডশেডিং হচ্ছে। আমাদেরকে সরকারের উন্নয়নের কথা মনে রাখতে হবে। এর ধারাবাহিকতা বজায় রাখতে হবে। কমপেক্ষ আরো একবার হলেও শেখ হাসিনাকে প্রধানমন্ত্রী বানাতে হবে। আর তার জন্য হাজীগঞ্জ ও শাহরাস্তিবাসীকে আগামী জাতীয় সংসদ নির্বাচনে ভোট দিয়ে নৌকাকে বিজয়ী করতে হবে।

মেজর (অব.) রফিকুল ইসলাম বলেন, আমার নির্বাচনী এলাকায় কোন রাজনৈতিক হয়রানি করা হয়নি। যারা হয়রানি হয়েছেন তারা অন্য মামলায় হয়েছেন। আমরা শান্তি শৃঙ্খলা বজায় রেখেছি। কোন রাজনৈতিক দলের নেতা-কর্মীর বিরুদ্ধে আমাদের দলের পক্ষ থেকে মামলা করা হয়নি। কিন্তু বিরোধী যারা আছেন, তারা অপপ্রচার চলাচ্ছে। আমাদেরকে সতর্ক থাকতে হবে। কারণ তারা যখন ক্ষমতায় ছিলেন তখন ব্যবসা প্রতিষ্ঠান ও স্বর্ণের দোকানে লুট করেছেন। তারা ক্ষমতায় আসলে মানুষ শান্তিতে থাকতে পারবে না। আমরা অতীতের কথা ভুলিনি। ২০০১ সাল থেকে ২০০৬ সাল পর্যন্ত এখানে অনেক অত্যাচার হয়েছে।

এসব অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন হাজীগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) মো. রাশেদুল ইসলাম, জেলা আওয়ামী লীগের কোষাধ্যক্ষ আহসান হাবীব অরুন, হাজীগঞ্জ উপজেলা আওয়ামী লীগ সাধারণ সম্পাদক সৈয়দ আহম্মেদ খসরু, সাংগঠনিক সম্পাদক হাজী জসিম উদ্দিন, ইউপি চেয়ারম্যান মজিবুর রহমান, ইউসুফ প্রধানিয়া সুমন, একেএম মজিবুর রহমান, উপজেলা যুবলীগের আহবায়ক মাসুদ ইকবাল, যুগ্ম আহবায়ক জাকির হোসেন সোহেল, পৌর যুবলীগের আহবায়ক তাজুল ইসলাম, পৌর ছাত্রলীগের সভাপতি সোহেল আলম বেপারী ও সাধারণ সম্পাদক মেহেদী হাসান রাব্বী প্রমূখ।

এসব অনুষ্ঠানে সংশ্লিষ্ট শিক্ষা প্রতিষ্ঠান প্রধান, পরিচালনা পর্ষদের সদস্য, স্থানীয় জনপ্রতিনিধি, শিক্ষক, শিক্ষার্থী ও সুধীজন উপস্থিত ছিলেন।

সংসদ সদস্য এই দিন সকাল থেকে সন্ধ্যা পর্যন্ত প্রতাপপুর সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয় ভবনের ভিত্তি প্রস্তর স্থাপন, সাদ্রা হামিদিয়া ফাযিল মাদ্রাসার ৪তলা ভীত বিশিষ্ট ১ তলা ভবনের উদ্বোধন, জাকনি সরকার প্রাথমিক বিদ্যালয়ের ভবন উদ্বোধন, বড়কুল বালিকা উচ্চ বিদ্যালয়ের ৪তলা একাডেমিক ভবনের উদ্বোধন করেন। এছাড়াও তিনি শাহরাস্তি উপজেলার হাসপাতাল ব্যবস্থাপনা কমিটির মিটিং এ যোগদান করেন।

আগামীকাল রোববার (২৪ জুলাই) সকাল ৯টায় সংসদ সদস্য হাজীগঞ্জ রাজাপুরা ইসলামিয়া দাখিল মাদ্রাসার ৪তলা ভবন উদ্বোধন, সকাল সোয়া ১০টায় বলিয়া উচ্চ বিদ্যালয়ের ৩তলা একাডেমিক ভবন উদ্বোধন, বেলা সোয়া ১১টায় কংগাইশ রেল লাইন হাড়িয়াইন সড়ক উদ্বোধন, দুপুর ১২টায় হাজীগঞ্জে জাতীয় মৎস্য সপ্তাহের উদ্বোধন এবং দুপুর দেড় টায় শাহরাস্তিতে জাতীয় মৎস্য সপ্তাহের কর্মসূচির শুভ উদ্বোধন করবেন।

ফম/এমএমএ/

স্পেশাল করেসপন্ডেন্ট | ফোকাস মোহনা.কম