দ্বন্দ নিরসনে হিজড়া মৌসুমির পৌর মেয়রের নিকট অ‌ভিযোগ

চাঁদপুর: চাঁদপু‌রে হিজড়া সম্প্রদায় দুইটি গ্রু‌পে বিভক্ত, এ বিভক্তি দ্ব‌ন্দে রুপ নি‌য়েছ। দ্বন্দ নিরসন ক‌রে ব‌্যাবস্থা নি‌তে চাঁদপুর পৌরসভার মেয়র অ‌্যাড‌ভো‌কেট জিল্লুর রহমান জু‌য়ে‌লের নিকট হিজরা লিডার মৌসুমি একটি অভিযোগ ক‌রে‌ছেন।

চাঁদপু‌রে হিজড়ারা দুইভা‌গে বিভক্ত হ‌য়ে সমা‌জের বি‌ভিন্ন ব‌্যাবসা প্রতিষ্ঠান ও ব‌্যা‌ক্তি‌দের কাছ থে‌কে সহ‌যো‌গিতা নি‌য়ে দিনা‌তিপাত কর‌ছে। সম্প্রতি হিজরা‌দের এ দুই গ্রু‌পের মা‌ঝে দ্বন্দ সৃ‌র্স্টি হয়। এ দ্বন্দ পৌর মেয়র মীমাংসা ক‌রে দেওয়ার প‌রেও মাহমুদা হিজরার নেতৃ‌ত্বে জা‌কির, সুমন, আক্তার, জু‌য়েলসহ বেশক‌য়েকজন জিহড়া এক‌ত্রিত হ‌য়ে মেয়রের নির্দেশ অমান্য করে তা‌দের ইচ্ছেমত বি‌ভিন্ন এলাকায় গি‌য়ে টাকা উ‌ত্তোলন ক‌রে। এ বিষয়‌টি জান‌তে পে‌রে জেলা হিজরা ক‌মিটির সভা‌পিত মৌসুমী হিজড়ার নেতৃ‌ত্বে ‌নিপা, হোস‌নে আরা, কা‌রিনা, ম‌ফিজ, রুবি, বিজলী, মেঘ হিজড়াসহ প্রায় ২০/৩০ জন হিজরা এক‌ত্রিত হ‌য়ে পৌর মেয়রের নিকট একটি অভি‌যোগ দা‌য়ের ক‌রেন।

অ‌ভি‌যোগ প‌ত্রে উ‌ল্ল্যেখ, আমি মৌসুমী চাঁদপুর জেলার হিজরা কিমিটির সভাপতি হিসাবে নিয়োজিত। আমার অন্যান্য সদস্যরা চাঁদপুর সদর আওতাধীন এক এক এলাকায় একএকদিন সাপ্তাহিক টাকা উঠায়। প্রতিপক্ষঃ মাহমুদা হিজড়া, জাকির, সুমন আক্তার, জুয়েল নামীয় হিজরা উক্ত এলাকায় সাপ্তাহিক টাকা উঠায়। তাহাদেরকে দায়ীত্ব দেওয়া হয়েছে হাইমচর উপজেলায়। কিন্তু তাহারা আমাদের এলাকায় টাকা উঠিয়ে নিয়ে
যায়। প্রকাশ থাকে যে, আপনার কার্যালয় কাহারা কোথায় টাকা উঠাবে তাহা সমাধান করিয়া দিয়াছেন।

অ‌ভি‌যোগের প‌রি‌প্রেক্ষি‌তে পৌরসভার মেয়র অ‌্যাড‌ভো‌কেট জিল্লুর রহমান জু‌য়ে‌ল লিডার মৌসুমী‌কে ব‌লেন, উভয় প‌ক্ষের লোকজন‌দের ডে‌কে বিষয়‌টি অ‌চি‌রেই সমাধান ক‌রে দ্য়ো হ‌বে।
ফম/এমএমএ/

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | ফোকাস মোহনা.কম