দেশের প্রিন্ট মিডিয়া বর্তমানে ধ্বস নেমেছে : জাফর ওয়াজেদ

চাঁদপুরে দুই দিনব্যাপী সংবাদ সম্পাদনা বিষয়ক প্রশিক্ষনের সমাপনী

চাঁদপুর: প্রেস ইনষ্টিটিউট বাংলাদেশ (পিআইবি)’র মহাপরিচালক জাফর ওয়াজেদ বলেছেন, আমাদের দেশের প্রিন্ট মিডিয়ায় বর্তমানে ধ্বস নেমেছে। এ অবস্থার সৃষ্টি হয়েছে বৈশ্বিক মহামারি করোনার কারণে। পূর্বে বাস স্টেশন ও বিভিন্ন স্থানের স্টল গুলোতে পত্রিকার পাঠক ছিল, এখন কমেগেছে। বিগত দিনে বিভিন্ন বাসা-বাড়িতে পত্রিকার পাঠকরা পত্রিকা রাখত, এখন তারা সেই করোনার সময় থেকে পত্রিকা রাখা বন্ধ করে দেওয়ায় আমাদের পত্রিকার পাঠক দিনদিন কমে যাচ্ছে।

বৃহস্পতিবার (৮ ডিসেম্বর) সন্ধ্যায় চাঁদপুর প্রেসক্লাবে আয়োজনে স্থানীয় দৈনিকের সহ-সম্পাদকদের অংশগ্রহনে দুইদিনব্যাপী সংবাদ সম্পাদনা বিষয়ক প্রশিক্ষনের সমাপনী অনুষ্ঠানে প্রধান বক্তার বক্তব্যে তিনি এসব কথা বলেন।

তিনি বলেন, আমাদের চাঁদপুরের সাংবাদিকরা নিশ্চয় অবগত আছেন, যে পরিমান পত্রিকা বিক্রি হতো এখন তা’ সঠিক ভাবে চলছেনা। বিশেষ করে চাঁদপুরে যে মানের পত্রিকা প্রকাশ হওয়ার কথা তা’হচ্ছেনা। এখানে লোকবলের অভাবের কারণে এ পত্রিকাগুলো পাঠকপ্রিয়তা পাচ্ছে না। তারা মান সম্মত পত্রিকা তৈরী করতে পারছেনা। এখানে লোকবল নিয়োগ দিয়ে ভাল করে পত্রিকা তৈরী করতে হবে। আমি চাঁদপুরের পত্রিকা গুলোর মান ভাল করার জন্য এ প্রশিক্ষনের ব্যবস্থা করে দিয়েছি। এখন মোবাইল সাংবাদিকতা শুরু করা হয়েছে। সাংবাদিকতার মান উন্নয়নের জন্য এ মোবাইল প্রশিক্ষন দেওয়া হচ্ছে। শুধু প্রশিক্ষন দিলে হবেনা। আপনারা ঘুমিয়ে থাকলে চলবেনা। চাঁদপুরে পত্রিকাগুলোর অনলাইন মিডিয়া চালু করতে হবে। এ পেশাকে মানুষের দৌড় গোড়ায় পৌঁছে দিতে হবে। আমাদের কাজ হচ্ছে পত্রিকার মান বাড়ানো।

তিনি স্থানীয় পত্রিকা সম্পর্কে বলেন, চাঁদপুরের পত্রিকায় যে বড় বড় আকারের হেডিং দেওয়া হয়, আবার তাতে অনেক বড় ভুলও থাকে। চাঁদপুরের সম্পাদকরা মান সম্পন্ন হেডিং ও রিপোর্টের মেকাপ করেন না। বড় বড় হেডিং নাদিয়ে সাব হেডিং দেয়া প্রয়োজন। দুর্বল রিপোর্টে বড় করে হেডিং দিয়ে ছেপে দেওয়ার প্রয়োজন নেই।

অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্য রাখেন চাঁদপুর জেলা পরিষদ চেয়ারম্যান আলহাজ¦ ওসমান গণি পাটোয়ারী। অনুষ্ঠানে সভাপতিত্ব করেন প্রেসক্লাব সভপতি গিয়াস উদ্দিন মিলন। সঞ্চালনায় ছিলেন সাধারণ সম্পাদক রিয়াদ ফেরদৌস।

এ ছাড়া চাঁদপুরের বিভিন্ন পত্রিকার সহ-সম্পাদকদের জন্য চাঁদপুরে প্রেস ইনস্টিটিউট বাংলাদেশ(পিআইবি’র) আয়োজনে সাংবাদিকতার বিভিন্ন বিষয়ের উপর জেলার বিভিন্ন সংবাদ সম্পাদনা বিষয়ক প্রশিক্ষনের সমাপনী দিনে সকাল থেকে বিকেল পর্যন্ত এ প্রশিক্ষনে বিভিন্ন পর্যায়ের ৩৫ জন সাংবাদিক অংশ গ্রহন করেন।

প্রশিক্ষনে প্রেস ইনস্টিটিউট বাংলাদেশ(পিআইবি’র) প্রশিক্ষক ছিলেন বেগম রোকেয়া বিশ্ব বিদ্যালয়ের গনযোগাযোগ ও সাংবাদিকতা বিভাগের সহকারী অধ্যাপক মাহমুদুল হক।

এ ছাড়া পিআইবির ক্রমবিকাশ নিয়ে আলোচনা করেন পিআইবির উপ-পরিচালক (প্রশাসন) মো: জাকির হোসেন ও মো. শাহ আলম সৈকত।

সবশেষ বিকেলের সংবাদ সম্পাদনার একাল-সেকাল নিয়ে ব্যাপক ভাবে আলোকপাত করেন পিআইবির মহাপরিচালক জাফর ওয়াজেদ।

দিন ব্যাপী অনুষ্ঠানে সকালের ও বিকেলে অতিথিদের ফুলেল শুভেচ্ছা জানিয়ে তাদেরকে চাঁদপুর প্রেসক্লাবের পক্ষ থেকে বরণ করে নেওয়া হয়।

প্রশিক্ষনের সার্বিক ব্যবস্থপনার দায়িত্ব পালন করেন পিআইবির কর্মকর্তা সৈয়দ মুহাম্মদ সাইফুল আকবর ও মো: জাকির হোসেন।

এ সময় উপরোক্ত বিষয়ের উপর বিভিন্ন প্রশ্নপত্র পর্বে অংশ গ্রহন করেন, প্রেসক্লাবের সভাপতি গিয়াস উদ্দিন মিলন ও সাধারণ সম্পাদক মো: রিয়াদ ফেরদৌস, সদস্য অধ্যক্ষ মো: দেলোয়ার আমেদ, চাঁদপুর খবর পত্রিকার সম্পাদক ও প্রকাশক মো: সোহেল রুশদী, প্রেসক্লাব সহ-সভাপতি রহিম বাদশা, সাংগঠনিক সম্পাদক শাহাদাত হোসেন শান্ত, দৈনিক আলোকিত বাংলাদেশ পত্রিকার জেলা প্রতিনিধি মোহাম্মদ শওকত আলী, দৈনিক চাঁদপুর সংবাদ পত্রিকার সম্পাদক ও প্রকাশক মো: আবদুর রহমান, প্রেসক্লাবের সাবেক সাধারন সম্পাদক এএইচএম আহসান উল্লাহ্, দৈনিক চাঁদপুর পত্রিকার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক কেএম মাসুদ ও দৈনিক চাঁদপুর প্রতিদিন পত্রিকার ভারপ্রাপ্ত সম্পাদক ইব্রাহিম রনি প্রমুখ।

ফম/এমএমএ/

মো. শওকত আলী | ফোকাস মোহনা.কম