দেশের গুরুত্বপূর্ণ সম্পদ চামড়া সংরক্ষণ করতে হবে

কোরবানির পশুর হাট পরিদর্শনে বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব তপন কান্তি ঘোষ

ছবি: শাহরিয়া পলাশ।

চাঁদপুর : চাঁদপুরে শেষ মুহুর্তে ঈদুল আযহা উপলক্ষে কোরবানির পশুর হাট জমে উঠেছে। সরকারি নির্দেশনা বাস্তবায়নে কাজ করছে প্রশাসন। এ বছর জেলায় প্রায় দুই শতাধিক কোরবানির পশুর হাট বসেছে। বাজারগুলো পরিদর্শন ও ভ্রাম্যমান আদালতও পরিচালিত হচ্ছে নিয়মিত।

শনিবার (০৯ জুলাই) দুপুরে চাঁদপুর সদরের সবচাইতে বড় কোরবানির পশুর হাট বাগাদী চৌরাস্তা বাজার হাট পরিদর্শন করেছেন বাণিজ্য মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব তপন কান্তি ঘোষ। তিনি হাটের ক্রেতা-বিক্রেতাদের সাথে কথা বলেন এবং সার্বিক ব্যবস্থাপনা দেখে সন্তোষ প্রকাশ করেন।

উপস্থিত সকলকে উদ্দেশ্যে করে বলেন, দেশের গুরুত্বপূর্ণ সম্পদ চামড়াগুলো লবন দিয়ে সংরক্ষণ করতে হবে। অনেকেই গরু অনেক দাম দিয়ে ক্রয় করলেও চামড়ার মূল্য কম হওয়ার কারণে সঠিকভাবে সংরক্ষণ করেন না। কিন্তু তা করা যাবে না। যাদের কল্যাণে যথার্থভাবে কাজে লাগে. এই সম্পদটা যেন আমরা বিদেশে পাঠিয়ে টাকা আনতে পারি এবং আমাদের অর্থনৈতিক উন্নতি হয়। এক্ষেত্রে সবচাইতে সহজ উপায় হচ্ছে একটি চামড়ায় ৭-৮ কেজি লবন মাখিয়ে দিলে ২ থেকে ৩ মাস নষ্ট হবে না।

তিনি আরো বলেন, বাজার পরিদর্শন করে দেখলাম বিসিকের পক্ষ থেকে লবনের ব্যবস্থা রাখা হয়েছে। প্রাণিসম্পদ কর্মকর্তা বাজার মনিটরিং করছেন এবং সচেতনতামূলক যে প্রচার, সেটি ভালভাবেই হচ্ছে। চামড়াগুলো বাজার কিংবা মাদ্রাসায় যেখানেই হউকনা কেন সঠিকভাবে সংরক্ষিত হয়। আমরা দেশের জাতীয় সম্পদ রক্ষা হউক। সে প্রচারের চেষ্টা চালিয়ে যাচ্ছি।

এ সময় উপস্থিত ছিলেন চাঁদপুরের জেলা প্রশাসক কামরুল হাসান, অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মো. ইমতিয়াজ হোসেন, সদর উপজেলা ইউএনও ফাহমিদা হক, সদর উপজেলা সহকারী কমিশনার (ভূমি) মোহাম্মদ হেলাল চৌধুরী, জেলা প্রশাসক কার্যালয়ের নির্বাহী ম্যাজিস্ট্রেট কাজী মো. মিশকাতুল ইসলাম ও স্থানীয় ইউপি চেয়ারম্যান বেলায়েত হোসেন, বাজার ইজারাদার জাকির হোসেন খান প্রমূখ।

ফম/এমএমএ/

শাহরিয়া পলাশ | ফোকাস মোহনা.কম