দলকে নেতৃত্বশূন্য করতে গ্রেনেড হামলা চালানো হয় : সুজিত রায় নন্দী

হাইমচরে আব্দুল কুদ্দুস পাটওয়ারী সমাধিতে সুজিত রায় নন্দীর শ্রদ্ধা নিবেদন

হাইমচর (চাঁদপুর): ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট বঙ্গবন্ধু এভিনিউতে বর্বোরোচিত গ্রেনেড হামলায় নিহত কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবক লীগ নেতা আব্দুল কুদ্দুস পাটওয়ারী সমাধিতে শ্রদ্ধা নিবেদন করেছেন বাংলাদেশ আওয়ামী লীগের ত্রাণ ও সমাজ কল্যাণ সম্পাদক সুজিত রায় নন্দী।

শুক্রবার (১৯ আগস্ট) বিকালে আব্দুল কুদ্দুস পাটওয়ারীর পরিবারের সদস্যদের নিয়ে তিনি ফুল দিয়ে শ্রদ্ধা নিবেদন করেন।

এ সময় সুজিত রায় নন্দী বলেন, ২০০৪ সালের ২১ আগস্ট বর্তমান প্রধানমন্ত্রী তৎকালীন বিরোধী দলীয় নেতা আওয়ামী লীগ সভাপতি শেখ হাসিনাকে হত্যা ও দলটিকে নেতৃত্বশূন্য করতে বঙ্গবন্ধু এভিনিউয়ের সমাবেশে ওই গ্রেনেড হামলা চালানো হয়। এতে আওয়ামী লীগের মহিলা বিষয়ক সম্পাদিকা ও প্রয়াত রাষ্ট্রপতি জিল্লুর রহমানের স্ত্রী আইভি রহমানসহ ২৪ জন নেতাকর্মী নিহত হন। অল্পের জন্য প্রাণে বেঁচে যান শেখ হাসিনা। আহত হন শতাধিক নেতাকর্মী এবং নিহত হন হাইমচরের কৃতি সন্তান কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবক লীগ সদস্য আব্দুল কুদ্দুস পাটোওয়ারী।

উপস্থিত ছিলেন হাইমচর উপজেলা আওয়ামী লীগ সহ-সভাপতি ও কেন্দ্রীয় স্বেচ্ছাসেবক লীগের সদস্য হুমায়ন পাটওয়ারী, শাহ আলম পাটোয়ারী-সাবেক সভাপতি হাইমচর উপজেলা যুবলীগ, উপজেলা আওয়ামী লীগের সদস্য আঃ খালেক আখন, সাবেক ছাত্র নেতা ফখরুউদ্দিন আলী আহমেদ, দক্ষিণ আলগী ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক টিটু জমাদার, আওয়ামী লীগ নেতা লিটন সিকদার, নজির গাজী, উত্তর আলগী ইউনিয়ন যুবলীগের সভাপতি জাহাঙ্গীর সিকদার, নীলকমল ইউনিয়ন যুবলীগের আহব্বায়ক নোয়াব মোল্লা, হাইমচর কলেজ ছাত্রলীগ সভাপতি রুবেল ভূইয়া, সাধারণ সম্পাদক আল মামুন, শ্রমিক লীগ নেতা শাহিন জমাদার, মোঃ রিফন জমাদার, জেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক শাহ পরান, সদর উপজেলা স্বেচ্ছাসেবক লীগের সিনিয়র যুগ্ম আহব্বায়ক শেখ শরিফ আহমেদ, চাঁদপুর জেলা ছাত্রলীগের সহ-সভাপতি টুটুল মজুমদার, তিমিরনাহা, ছাত্রলীগ নেতা ইকবাল হোসেন লিটনসহ আওয়ামী লীগ এবং অঙ্গ সহযোগী সংগঠনের নেতৃবৃন্দ।

শ্রদ্ধা নিবেদন শেষে আব্দুল কুদ্দুস পাটওয়ারীর পরিবারের খোঁজখবর নেন এবং সৌজন্য সাক্ষাৎ করেন সুজিত রায় নন্দী।
ফম/এমএমএ/

সংবাদদাতা | ফোকাস মোহনা.কম