চাঁদপুরে মা ইলিশ রক্ষায় টেলিভিশন সাংবাদিক ফোরামের মুক্ত আলোচনা

চতুরঙ্গ সাংস্কৃতিক সংগঠন এর আয়োজনে

চাঁদপুর: চাঁদপুরে চতুরঙ্গ সাংস্কৃতিক সংগঠন এর আয়োজনে ও চাঁদপুর টেলিভিশন সাংবাদিক ফোরামের ব্যবস্থাপনায় ১৪তম জাতীয় ইলিশ উৎসব চাঁদপুর-২০২২ অনুষ্ঠানে জাটকা ও মা ইলিশ সংরক্ষন মৌসুমী বিষয়ে মুক্ত ভাবনায় সকল মাছ ধরার নৌকা প্রশাসনের হেফাজতে রাখা জরুরী শীর্ষক আলোচনা সভা অনুষ্ঠিত হয়েছে।

সোমবার (১৯সেপ্টেম্বর ) সন্ধ্যা ৬টায় চাঁদপুর জেলা শিল্পকলা একাডেমিতে চাঁদপুর টেলিভিশন সাংবাদিক ফোরামের সেক্রেটারী ও একাত্তর টিভির জেলা প্রতিনিধি কাদের পলাশের সঞ্চালনায় সভাপতির বক্তব্য রাখেন, বিজয় টিভির স্টাফ রির্পোটার ও চাঁদপুর টেলিভিশন সাংবাদিক ফোরামের কার্য নির্বাহী কমিটির সিনিয়র সদস্য এবং দৈনিক চাঁদপুর খবর পত্রিকার প্রতিষ্ঠাতা সম্পাদক ও প্রকাশক সোহেল রুশদী।

সভাপতির বক্তব্যে বিজয় টিভির স্টাফ রির্পোটার ও চাঁদপুর টেলিভিশন সাংবাদিক ফোরামের কার্যনির্বাহী কমিটির সিনিয়র সদস্য এবং দৈনিক চাঁদপুর খবর পত্রিকার প্রতিষ্ঠাতা সম্পাদক ও প্রকাশক সোহেল রুশদী বলেন, ইলিশ রক্ষায় জেলেদের পুর্নবাসন করতে হবে। জেলেদের সুযোগ-সুবিধা বৃদ্ধি করতে হবে। কারন জেলেদের সংসার রয়েছে। জেলেদের পুনবাসন করলে মা ইলিশ রক্ষা করা যাবে। অবৈধ কারেন্ট জাল উৎপাদন বন্ধ করলে ইলিশ রক্ষা করা যাবে। জেলা প্রশাসন, পুলিশ প্রশাসন, কোস্ট গার্ড, নৌ পুলিশ মা ইলিশ রক্ষায় কাজ করছে। ইলিশ মাছ রক্ষায় সামাজিক আন্দোলন গড়ে তুলতে হবে। সামজিক আন্দোলনের মাধ্যমে মা ইলিশ রক্ষার প্রতিবাদ গড়ে তুলতে হবে।

তিনি বলেন, চাঁদপুরের সাবেক ডিসি বতমান অতিরিক্ত সচিব আব্দুস সবুর মন্ডল স্যার ইলিশ সম্পদ রক্ষায় ব্যাপক কাজ করেছেন। তিনি চাঁদপুর জেলাকে ইলিশের নামে ব্যান্ডিং করেছেন। আমি ধন্যবাদ জানাই চতুরঙ্গ সাংস্কৃতিক সংগঠনের মহাসচিব হারুন ভাইকে। তিনি এ উৎসবের মাধ্যমে ইলিশকে তুলে ধরেছেন। যার যার অবস্থান থেকে আমরা সচেতন হলে ইলিশ সম্পদ রক্ষা করা যাবে।

মুক্ত ভাবনা অনুষ্ঠানে আরো বক্তব্য রাখেন, চাঁদপুর টেলিভিশন সাংবাদিক ফোরামের প্রতিষ্ঠাতা সভাপতি শরীফ চোধুরী। তিনি বলেন, আমি আশা রাখি জাতীয় ইলিশ উৎসব আরো বড় পরিসরে করার চেষ্টা করবে হারুন ভাই। কিভাবে ইলিশকে বিশ্বে তুলে ধরা যায় তা তুলে ধরছে চতুরঙ্গ। ২০১৩সাল থেকে এ উৎসবটা শুরু করছে চতুরঙ্গ। ইলিশের জন্যই আজ ইলিশের বাড়ি চাঁদপুর। ঝাটকা রক্ষায় প্রশানের পক্ষ থেকে কঠোর অভিযান করা হয়েছে। ইলিশ রক্ষায় সকলকে একযোগে কাজ করতে হবে।

আরো বক্তব্য রাখেন, দেশ টিভির জেলা প্রতিনিধি ও চাঁদপুর টেলিভিশন সাংবাদিব ফোরামের কার্যনির্বাহী সদস্য লক্ষন চন্দ্র সূত্রধর। তিনি বলেন, আপনারা কারেন্ট জাল উৎপাদন বন্ধ করেন, তাহলে জেলেরা নদীতে মা ইলিশ ধরবে না। কোন কোন স্থানে জনপ্রতিনিধিরাও নদীতে মা ইলিশ ধরতে সহযোগিতা করেন। প্রকৃত জেলেরা সরকারি সহায়তা না পাওয়ায়, জেলেরা মাছ ধরতে নদীতে নামে। চতুরঙ্গকে ধন্যবাদ, তারা ইলিশ সম্পদটাকে বিশ্বে তুলে ধরছে।

এসময় আরো বক্তব্য রাখেন, এখন টিভির জেলা প্রতিনিধি তালহা যোবায়ের, ডিবিসি টিলিভিশনের জেলা প্রতিনিধি আতিক, বাংলা টিভির জেলা প্রতিনিধি ইকবাল বাহার।

মুক্তভাবনা অনুষ্ঠান শেষে চতুরঙ্গ সাংস্কৃতিক সংগঠন সংস্থার মহাসচিব হারুন আল রশিদ এর পরিচালনায় গুনী সাংবাদিক কে সংবার্ধনা ক্রেস্ট প্রধান করেন সাংবাদিক নেতৃবৃন্দ।

উপস্থিত ছিলেন চাঁদপুর প্রেসক্লাবের সাবেক সভাপতি ও চাঁদপুর ১৪তম জাতীয় ইলিশ উৎসব এর আহবায়ক কাজী শাহাদাতসহ শিল্পী সাহিত্যিক,সাংবাদিক সুধীজন ও মৎস্যজীবির নেতৃবৃন্দ ।

ফম/এমএমএ/

সংবাদ বিজ্ঞপ্তি | ফোকাস মোহনা.কম