চাঁদপুরে কৃষি জমিতে ড্রেজার বসিয়ে মাটি কাটার অভিযোগ! 

চাঁদপুর: চাঁদপুর সদর উপজেলার বালিয়া ইউনিয়নে কৃষি জমিতে মিনি ড্রেজার বসিয়ে ফসলি মাটি কাটার অভিযোগ উঠেছে। একটি প্রভাবশালী চক্র প্রশাসনকে বৃদ্ধাঙ্গুলি দেখিয়ে মিনি ড্রেজার দিয়ে জোরপূর্ব ফসলি জমির মাটি কেটে নিয়ে যাচ্ছে।

রবিবার (৩০ অক্টোবর) সকাল থেকে ইউনিয়নের গুলিসা গ্রামে তালুকদার বাড়ির পাশে ফসলি জমি থেকে মিনি ড্রেজার বসিয়ে মাটি কাটতে দেখা যায়।
স্থানীয় তালুকদার বাড়ির আবুল খায়ের তালুকদার, সেলিম তালুকদার ও দুলাল তালুকদার জানান, আমাদের ফসলি জমিতে জোরপূর্বক তারা ড্রেজার বসিয়ে মাটি কেটে নিয়ে যাচ্ছে। এই জমির একপাশে আমাদের বসতভিটা ও আরেকপাশে আরো ফসলী জমি রয়েছে। এভাবে ড্রেজার বসিয়ে ফসলে জমির মাটি কেটে নিয়ে গেলে আমাদের বসতভিটা ও বাকি কৃষি জমিগুলো হুমকির মধ্যে পড়বে। যেই জমিতে তারা ড্রেজার বসিয়ে মাটিকাটছে সেটা আমাদের জমি। এ জমিতে দীর্ঘদিন যাবত আমরা ফসল করে আসছি। সোহাগ মিজি গংরা জোরপূর্বক আমাদের জমিতে ড্রেজার বসিয়ে মাটি কাটছে। ইউনিয়ন ভূমিক কর্মকর্তা এসে মাটি কাটতে বারণ করলে তারা ড্রেজার বন্ধ করে। ভূমি কর্মকর্তা  চলে গেলে তারা আবার পুনরায় ড্রেজার চালু করে।
বালিয়া ইউনিয়ন ভূমি কর্মকর্তা জানান, খবর পেয়ে আমরা ঘটনাস্থলে গিয়েছি। ফসলী জমি থেকে মাটি কাটতে নিষেধ করেছি এবং ড্রেজার বন্ধ করেছি। তবে তারা আমাদের কথা শুনতেছে না। ঊর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষকে জানিয়েছি। যথাযথ প্রদক্ষেপ নেয়া হবে।
এ বিষয়ে চাঁদপুর সদর উপজেলার ভারপ্রাপ্ত নির্বাহী কর্মকর্তা ও সহকারী কমিশনার (ভুমি) মুহাম্মদ হেলাল উদ্দিনের সাথে কথা হলে তিনি জানান, বিষয়টি আমরা জেনেছি, যে কোন ফসলি জমিতে ড্রেজার দিয়ে মাটি কাটা নিষেধ রয়েছে। দ্রুত আইনি প্রদক্ষেপ নেয়া হবে।
ড্রেজার মালিক টেলু জানান, আমাদেরকে একটি পক্ষ ভাড়া করে এনেছে মাটি কাটার জন্য।
ফম/এমএমএ/

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট | ফোকাস মোহনা.কম