কসাইর জবাইকৃত গরুর মলমুত্র দূষিত পরিবেশ, জনজীবন হুমকির মুখে !

রায়পুর (লক্ষ্মীপুর) : ‘লক্ষ্মীপুরের-রায়পুর’ ‘চাঁদপুরের-ফরিদগঞ্জ’ বর্ডার এলাকায় বেআইনীভাবে কসাই জসিম প্রতিদিনের জবাইকৃত গরুর দূষিত মলমুত্র রক্তে সরকারী খালের পানি দূষিত হয়ে জনজীবন হুমকির মুখে রয়েছে।

এলাকায় সামাজিক এবং মসজিদ মাদ্রাসাসহ ধর্মীয় প্রতিষ্ঠান রয়েছে। এতে করে মসজিদের মুসল্লিরা খালের দূষিত পানি ব্যবহার করা অযোগ্য হয়ে পড়ছে, এবং স্থানীয় জনগন খালের পানি ব্যবহার করে বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত হয়ে পড়ছে।

রায়পুর ফরিদগঞ্জের বর্ডার এলাকায় সৈয়দ আলী বেপারী বাড়ীর নুরুল আমিনের ছেলে কসাই জসিম দীর্ঘদিন থেকে প্রশাসনের বিধিবিধান অমান্য করে বেআইনী এবং অবৈধভাবে এ ধরনের অনিয়ম করে আসছে।

প্রশাসনকে তোয়াক্কা না করেই অবৈধভাবে জবাইকৃত গরুর সকল ময়লা আবর্জনা খালের পানিতে মিশে চরমভাবে ক্ষতিগ্রস্থ হচ্ছে এলাকার পরিবেশ ও সমাজব্যবস্থা।

এদিকে ঘটনার তীব্র নিন্দা জানিয়ে জনগন প্রতিবাদ মানববন্ধন করেও প্রশাসনের পক্ষ থেকে কোন ধরনের প্রতিক্রিয়া না পাওয়ায় জনজীবনে অস্বস্তি নেমে আসে।

স্থানীয় সচেতন সুশীল সমাজের লোকজন জানান, এ ব্যাপারে প্রতিবাদ করলে অনেকেই হুমকি স্বীকার হয়। স্থানীয় বসবাসকৃত লোকজন জানান, জবাইকৃত গরু দূষিত রক্ত মলমুত্রের দূর্ঘন্ধে এলাকায় জনজীবন হুমকির মুখে রয়েছে।

এ ব্যাপারে প্রশাসনের প্রতি একান্ত সু-দৃষ্টি কামনা করছেন সুশীল সমাজের লোকজন।

এ ব্যাপারে যোগাযোগ করা হলে রায়পুর উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) অনজন দাশ বলেন, খোঁজ খবর নিয়ে যথাসময়ে আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে এবং ফরিদগঞ্জ উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা (ইউএনও) তাসলিমুন নেছা বলেন, তদন্ত করে অভিযুক্তের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে জানিয়েছেন।

ফম/এমএমএ/

মিজানুর রহমান মঞ্জু | ফোকাস মোহনা.কম